Breaking News
Home / খেলার খবর / বিরাটদের খাবারের মেনুতে বীফ! এত কিছুর পরেও ইনিংস পরাজয় এড়াতে পারলো না

বিরাটদের খাবারের মেনুতে বীফ! এত কিছুর পরেও ইনিংস পরাজয় এড়াতে পারলো না

খেলার খবর: ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যেকার দ্বিতীয় টেস্ট চতুর্থ দিনেই খেলা শেষ হয়ে গেল। খাতায় কলমে টেস্টের চতুর্থ দিন হলেও কিন্তু খেলা হল মাত্র তিন দিন। হুড়মুড়িয়ে ভারতীয় দলের ব্যাটিং লাইন-আপে ধ্বস নামলো। এতো অভিজ্ঞতা, এতো ব্যাটিং নির্ভর দল কোনো কাজে আসলো না। বিরাটের দলের খেলা দেখে মনে হলো যেন তারা নতুন গ্রহের দেশে এসে হাজির হয়েছে। কার নাম বাদ দিয়ে কার নাম বলি, মুরলি বিজয় থেকে বিরাট কোহলি সকলেই যেন চোখে বল অস্পষ্ট দেখছিলেন।
ইংল্যান্ড দল
দু-ইনিংস মিলিয়ে ভারত করলো মাত্র ২৩৭ রান। যা ভারতের কোটি কোটি দর্শকদের আশায় জল ঢেলে দিলো। ফলে ভারতের দ্বিতীয় ইনিংসে সংগ্রহ মাত্র ১৩০ রান। প্রথম ইনিংসে পাঁচ উইকেট পাওয়া জেমস অ্যান্ডারসন পেলেন চার উইকেট। তাকে যোগ্য সঙ্গত দিলেন স্টুয়ার্ট ব্রড। তিনিও পেলেন চার উইকেট। বাকি দুটি উইকেট ক্রিস ওক্‌সের ঝুলিতে গেল। প্রথম ইনিংসে রবিচন্দন আশ্বীন করেছিলেন ভারতের হয়ে সর্বোচ্চ স্কোর। দ্বিতীয় ইনিংসেও তার ব্যতিক্রম হল না। তিনিই ব্যাট হাতে করলেন সর্বোচ্চ ৩৩ রান। সুতরাং ভারত দ্বিতীয় টেস্ট এক ইনিংস ও ১৫৯ পরাজিত হলো।


কিন্তু এরই মাঝে হাজির এক নতুন বিতর্ক। তৃতীয় দিনে বিরাটদের লাঞ্চের মেনুতে ছিল বীফ। যা দেখে সকলেই হতবাক। বিসিসিআই বিরাটদের লাঞ্চের মেনুর ফটো টুইটার একাউন্টে পোস্ট করেন। যদিও এটা পরিস্কার নয় সেটা গরুর মাংস ছিল না মহিষের! কারণ মহিষের মাংসের জন্যেও বীফ কথাটি ব্যবহার করা হয়। এই মেনুতে আরও ছিল গ্রিলড চিকেন, ডাল মাখানী, বাটারনট স্কোয়াস সুপ, চিকেন টিক্কার মতো রাজকীয় সব খাবার-দাবার।
বিরাট কোহলি
মেনুতে বীফ থাকার কারণে স্বভাবতই বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে। এই মেনু দেখার পর বিভিন্ন জন বিভিন্নভাবে প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন। সোশ্যাল মিডিয়াতেও অনেক ভারতীয় ক্রিকেট ভক্তরা কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন।
আরও পড়ুন: শেওয়াগ বললেন দলে একে না নিলে ৫-০ তে হারতে হবে ভারতকে

Check Also

রোনাল্ডোর খরচ

ধর্ষণের অভিযোগ ধমাচাপা দিতে রোনাল্ডোর খরচ শুনলে চমকে উঠবেন

সবার খবর, ওয়েব ডেস্ক: পর্তুগিজ ফুটবল তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর ওপর ধর্ষণের অভিযোগ তুলেছিলেন ক্যাথরিন মায়োরগা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *