Breaking News
Home / শরীর স্বাস্থ্য / খুব সহজেই পিঠে ব্যথার সমাধান পাবেন এই কাজগুলি করলে

খুব সহজেই পিঠে ব্যথার সমাধান পাবেন এই কাজগুলি করলে

সবার খবর হেল্থ ডেস্ক:আমরা কোনো না কোনো সময় পিঠে ব্যথার সমাধান খুঁজেছি। কারণ যেকোনো মানুষের যেকোনো বয়সে পিঠে ব্যথা হতেই পারে। আর এটি একটি সাধারণ সমস্যাও বটে। কিন্তু ৪০ বছর পার হলে সাধারণত পিঠে ব্যথা হয়ে থাকে। এই উপমহাদেশের শতকরা ৮০ ভাগ মানুষ জীবদ্দশায় কোন না কোন সময় পিঠে ব্যথা অনুভব করেছেন। যে কারণে প্রতিদিন চলাফেরা থেকে কর্মক্ষেত্রে এর প্রভাব ব্যাপকভাবে পড়ে। পিঠে ব্যথা হলে বসা, ওঠা এমনকি ঘুমোতে গিয়েও সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। পিঠে ব্যথার সমাধান খুঁজতে গিয়ে আমরা ভুরি ভুরি ওষুধ ব্যবহার করে থাকি।পরবর্তীতে তা দেহে নানান পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া বয়ে আনে। আপনার পিঠে ব্যথা হচ্ছে? পিঠে ব্যথার সমাধান করার চেষ্টা করা হলো এই পোস্টে। এগুলো ব্যবহার করে একবার দেখুন। উপকার না পেলে চিকিৎসক তো আছেই।
পিঠে ব্যথা

পিঠে ব্যথার সমাধান পেতে যা যা করবেন

প্রতিদিন সকাল বেলায় সরিষা অথবা নারকেল তেলে ৩,৪ কোয়া রসুন নিন। তারপর তা গরম করুন যতক্ষণ পর্যন্ত রসুনের কোয়া কালো না হয়ে যাই। তেল ঠান্ডা হলে কোমরের ওপর ভাগে অথবা যেখানে ব্যথা হচ্ছে সেখানে ব্যবহার করুন। এতে পিঠে ব্যথা থেকে অনেকটাই মুক্তি পাবেন আপনি।

পবিত্র তুলসী গাছ শুধু একটি গুরুত্বপূর্ণ আয়ুর্বেদিক ওষুধ তা কিন্তু নয়। পিঠে ব্যথা হলেও তুলসী গাছের পাতা আপনার অনেকটা আরাম দিতে পারে। ৮ থেকে ১০ টি তুলসীর পাতা এক কাপ জলে ভালো করে ফুটাতে থাকুন। যতক্ষণ না সেই জল আধা কাপে পরিনত না হয়। তারপর উষ্ণ জলে এক চিমটি লবণ দিন। অল্প ব্যথা হলে এই মিশ্রণ দিনে একবার পান করুন। আর যদি ব্যথার পরিমাণ খুব বেশি হয় তবে দুবার ব্যবহার করতে পারেন।

রসুন আরেকভাবে ব্যবহার করলে পিঠে ব্যথার সমাধানে সাহায্য করতে পারে। খালি পেটে প্রতিদিন দুই থেকে তিনটি কোয়া রসুন খান। রসুন তেল দিয়েও আপনার পিঠে ম্যাসাজ করতে পারেন। যেসব জায়গায় ব্যথা অনুভব করছেন সেখানে একটু আদার পেস্ট ব্যবহার করুন। ১৫ মিনিটের জন্য এটি রেখে দিন। তারপর আলতো ভাবে মুছে ফেলুন। কয়েকদিনের জন্য প্রতিদিন এই কাজটি করুন দেখবেন ব্যথা সেরে গেছে।

লবণ মিশ্রিত গরম পানিতে একটা কাপড় ভিজিয়ে ভালো করে জল বের করে নিন। এরপর পেটের ওপর ভর দিয়ে শুয়ে পড়ুন। পিঠের যেসব স্থানে ব্যথা হচ্ছে সেসব জায়গায় কাপড় দিয়ে দিয়ে ভাপ দিন। ব্যথা উপশমে এটি খুবই কার্যকারী উপায়। এই পদ্ধতিটি প্রাচীনকাল থেকে চলে আসছে। যা আজও খুব ফলদায়ক।

বরফ লাগানোর ফলে ব্যাথার উপশম খুব সহজেই হয় কিন্তু খুব ব্যথা হলে সেখানে বরফ না ব্যবহার করাই শ্রেয়।

এক কাপ গরম ক্যামোমাইল চা ব্যথা উপশমে একটি গুরুত্বপূর্ণ ভেষজ ঔষধ। আপনি যেকোন অনলাইন স্টোর থেকে অথবা বাড়ির পাশের দোকান থেকেও ক্যামোমাইল চা কিনতে পারেন।

পিঠে ব্যথা থেকে কিভাবে বাঁচবেন

সব সময় সোজা হয়ে চলাফেরা করুন এমনকি বসে থাকলেও সোজা হয়ে বসুন। ব্যথা হলে কখনোই প্রথমে না জেনে ব্যায়াম করতে যাবেন না। এতে আরো ব্যথা বেড়ে যেতে পারে। কোন সময় জোরে ভর দিয়ে ম্যাসাজ করার চেষ্টা করবেন না সংক্রমিত ব্যথার স্থানে। অফিসে সব সময় চেয়ারে বসে থাকবেন না কিছুক্ষণ পর পর ১০ ধাপ হেটে নেবেন। ভিটামিন ডি, সি, ক্যালসিয়াম এবং ফসফরাসে ভরপুর খাদ্য খান। প্রতিদিন নিয়মিত শরীরচর্চা করতে ভুলবেন না।
পিঠে ব্যথার জন্য উপরোক্ত নিয়মগুলো মেনে চলুন তাতে পিঠে ব্যথা থেকে অনেকটাই মুক্তি পাবেন কিন্তু যদি ব্যথার পরিমাণ খুব বেশি হয় তবে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নেবেন।
Read More: রসুনের মধ্যে লুকিয়া আছে সুস্থ থাকার চাবি-কাঠি ।

Check Also

চুল সাদা কেনো হয়

চুল সাদা হওয়ার কারণ কি? চুল কালো রাখার পদ্ধতি জেনে নিন

সবার খবর, ওয়েব ডেস্ক: আমাদের শরীরের চুল এমন একটি অঙ্গ যা প্রতিনিয়ত বাড়তেই থাকে। সময়ের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *